পাকিস্তান ও আফগানিস্তানের মাদ্রাসাগুলিতে জঙ্গি প্রশিক্ষণ দেওয়া হয় এমনই অভিযোগ

Share:

শুধু ভারতকে টার্গেট করে জঙ্গী তৈরি করছে মাদ্রাসাগুলি । বিভিন্ন জায়গায় আচমকা  জঙ্গিগোষ্ঠী গুলি চালাতে আরম্ভ করছে। ওই সমস্ত জঙ্গিদের  হাতে ইতিমধ্যেই তুলে দেওয়া হচ্ছে অস্ত্রশস্ত্র। মৃত্যু হচ্ছে উপত্যাকার পাহারারত সেনাবাহিনী। তাদেরকে খতম করতে একবারও জঙ্গিদের হাত কাঁপে না । কারণ তাদেরকে এই ভাবেই প্রশিক্ষণ দেওয়া হয় পাকিস্তান আফগানিস্তানের মাদ্রাসাগুলিতে। পাকিস্তান এবং আফগানিস্তান এর মাদ্রাসা গুলি জঙ্গি তৈরির কারখানা। এমনি কথা জানিয়েছেন রাষ্ট্রপুঞ্জের মানবাধিকার কমিশন। সংগঠনের৪৮ তম অধিবেশনে উদ্বেগ প্রকাশ করলেন ইউরোপিয়ান ফাউন্ডেশন ফর সাউথ এশিয়া স্টাডিজ গবেষক হেক্যান ড্রপ।

 রাষ্ট্রপুঞ্জের ৪৮ তম অধিবেশনে উদ্বেগ প্রকাশ করলেন ইউরোপিয়ান ফাউন্ডেশন ফর সাউথ এশিয়ান স্টাডিজ এর গবেষক। হেকেন জানিয়েছেন পাকিস্তান এবং আফগানিস্তানের মাদ্রাসাগুলিতে যারা পড়াশুনা করে তাদের মগজ ধোলাই করা হয়। লস্কর-ই-তৈয়বা আর জয়শে মোহাম্মদের মত জঙ্গি সংগঠন  তৈরি করেন তারা। তিনি জানান পাকিস্তান এবং আফগানিস্তানের ধর্মীয় স্কুল ও মাদ্রাসা যুবসমাজকে জিহাদের জন্য বাধ্য করে। সেখানে তাদের অন্য ধর্মের প্রতি ঘৃণার পাঠ করানো হয় ।

 তাদের সন্ত্রাসের রাস্তায় নিয়ে যেতে চায় যার ফলে জঙ্গির সংখ্যা দিন দিন বাড়তে আরম্ভ করেছে। যদিও পাকিস্তান এবং তালিবান এই কথার সত্যতা মেনে নেয়নি। তারা জানিয়েছে আমাদের এখানে কাউকে জঙ্গি প্রশিক্ষণ দেওয়া হয় না । আমরা এখানে ধর্মীয় আচার আচরণ প্রভৃতি শেখায়। 

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য আফগানিস্তান তালিবানরা দখল করার পরই ভারতের বিভিন্ন জায়গায় বিশেষ করে কাশ্মীর এবং জম্মুতে জঙ্গিরা আরো বেশি সক্রিয় হয়ে উঠেছে । প্রতিদিনই প্রায় সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ছে ভারতীয় সেনার সঙ্গে তারা। এই জঙ্গি নিধনে বিশ্বকে বাঁচাতে সবাইকে এগিয়ে আসতে হবে। না হলে পরবর্তীকালে বিশ্বের ভয়ংকরতম ঘটনা ঘটে যেতে পারে। যেমন ওসামা বিন লাদেন আক্রমণ করেছিল আমেরিকাকে। ফলে সকলকে সতর্ক থাকতে অনুরোধ করেছেন তিনি।

কোন মন্তব্য নেই

Please dont enter any spam link in the comment box.

_M=1CODE.txt Displaying _M=1CODE.txt.